তথ্যমন্ত্রী: ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে ডিটিএইচ সার্ভিস বন্ধ করতে হবে

আগামী ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে ডাইরেক্ট টু হোম (ডিটিএইচ) সার্ভিস বন্ধের নির্দেশ দিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তিনি বলেন, ‘ডিটিএইচ সার্ভিস চালু করে বাংলাদেশ থেকে প্রতিবছর ৭০০-৮০০ কোটি টাকা হুন্ডির মাধ্যমে বিদেশ চলে যাচ্ছে, যা দেশের জন্য ক্ষতিকর।বুধবার সচিবালয়ে টিভি শিল্পী, নাট্যকার ও অনুষ্ঠান নির্মাতাদের সার্বজনীন সংগঠন এফটিপিও (ফেডারেশন অভ টিভি প্রফেশনালস অর্গানাইজেশনস) এর সাথে মতবিনিময় অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।তিনি বলেন, সরকারের অনুমোদন ছাড়া বাংলাদেশে বিদেশি অনেক কোম্পানি ডিটিএইচ এর মাধ্যমে ডাউন লিংক করে সরাসরি বিদেশি চ্যানেল দেখানো হচ্ছে, যা সম্পূর্ণ অবৈধ।

এরকম অনেক বিদেশি কোম্পানি সরকারের অনুমতি ব্যতীত এতোদিন চালিয়ে আসছে। আগামী ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে ডিটিএইচ সার্ভিস বন্ধ করতে হবে। না হলে বন্ধের জন্য ১৬ ডিসেম্বর থেকে আমরা মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করবো।দেশে সম্প্রচারে শৃঙ্খলা আনতে সরকারের বিভিন্ন প্রদক্ষেপের কথা জানিয়ে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, এর আগে আমি বিদেশি চ্যানেলে বাংলাদেশি বিজ্ঞাপন বন্ধ করতে পেরেছি। টিভিতে সম্প্রচারের তারিখ অনুযায়ী চ্যানেলগুলো সিরিয়াল করে দিয়েছি।তথ্যমন্ত্রী জানান, এফটিপিও নেতাদের যৌক্তিক দাবি বাস্তবায়নে কাজ করা হবে। আগে বিদেশ থেকে সিনেমা এনে বাংলাদেশ দেখানো হতো। এখন যেকোন বিদেশি সিনেমা ডাবিং করতে হলে বাংলাদেশ সরকারের অনুমতি লাগবে।আরো পড়ুন অন্য বিষয় সম্পর্কে…….বাংলাদেশের জার্সিতে টি-টোয়েন্টিতে অভিষেক ম্যাচেই নজর কাড়েন লেগ স্পিনার আমিনুল ইসলাম বিপ্লব। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সেই ম্যাচে ৪ ওভারে ১৮ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছিলেন তিনি।কিন্তু সেই ম্যাচেই ইনজুরিতে পড়েন তিনি। যার কারণে হাতে তিনটি সেলাই পড়ে তার। ইনজুরি থেকে সেরে উঠেছেন তিনি। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে অভিষেক হতে যাচ্ছে তার। আগামী ১০ অক্টোবর থেকে মাঠে গড়াচ্ছে জাতীয় ক্রিকেট লিগ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares