১১ দিন বয়সী শিশু কন্যাকে বিক্রি করলেন মা

জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলায় ১১দিন বয়সী এক শিশু কন্যাকে বিক্রি করেছেন মা। বুধবার বিকালে উপজেলার মাজালিয়া পশ্চিম পাড়া গ্রামে। ঘটনাটি এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে উৎসুক মানুষের ভিড় জমে। এলাকাবাসী ও শিশুর মা নাজমা বেগম (২৩) জানান, ঢাকার সায়েদাবাদে মিরাজ আলী নামে এক গার্মেন্টস কর্মীর সঙ্গে তার প্রেমের সর্ম্পকে বিয়ে হয়। বিয়ের পর ৬ মাসের অন্তঃসত্ত্বা রেখে স্বামী মারা যান। অন্য কোন উপায় না থাকায় নাজমা অভাবের তাড়নায় জামালপুরে ভিক্ষা করতে আসলে গত ২০ অক্টোবর জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে একটি কন্যা শিশু প্রসব করেন। এ সময় ওই হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা

নিতে আসা উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের মাজালিয়া পশ্চিম পাড়া গ্রামের আব্দুল হানিফের স্ত্রী ফাহিমা বেগমের সঙ্গে নাজমার সাক্ষাৎ হয়। নাজমার স্বামীর মৃত্যু, দারিদ্রতা ও অসহায়ত্বের কথা শুনে গত ২৭ অক্টোবর ফাহিমা বেগমের বাড়িতে নাজমাকে আশ্রয় দেন। এরপর অসুস্থ নাজমা তার ১১দিন বয়সী কন্যা শিশুকে বিক্রির প্রস্তাব দেন। পরে উপজেলার পোগলদিঘা ইউনিয়নের মালিপাড়া গ্রামের ১৫ বছরের দাম্পত্য জীবনের নিঃসন্তান দম্পতি সাইফুল ইসলাম ও মারুফা ইসলামের কাছে নগদ ২০ হাজার টাকার বিনিময়ে শিশু বিবি আয়শাকে বিক্রি করে দেন তিনি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে নিঃসন্তান দম্পতি মারুফা ইসলাম বলেন, শিশু বিবি আয়শার মা নাজমাকে নগদ ২০ হাজার টাকার বিনিময়ে তাকে নিয়ে এসেছি। এ ব্যাপারে ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) সদস্য মন্টু মিয়া বলেন, নাজমা নামে এক নারী ১১ দিনের কন্যা শিশু ২০ হাজার টাকায় বিক্রি করে চলে গেছে। সরিষাবাড়ী উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের ইউপি সচিব সফিকুল আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।এ বিষয়ে সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মুহাম্মদ মাজেদুর রহমান বলেন, এ বিষয়ে আমি কিছু জানিনা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares